আর্জেন্টিনার ‘তুরুপের তাস’ লানজিনি-পাভন!

বিশ্বকাপের আগে প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে হাইতিকে ৪-০ গোলে হারিয়েছে আর্জেন্টিনা। ফিফা র‌্যাংকিংয়ে হাইতির অবস্থান ১০৮ নম্বরে। তাই তাদের বিপক্ষে আর্জেন্টিনার প্রস্তুতি কেমন হলো এ নিয়ে প্রশ্ন থাকতে পারে। তবে এ ম্যাচ থেকে আর্জেন্টিনা কোচের প্রাপ্তি হতে পারেন ওয়েস্ট হ্যাম মিডফিল্ডার ম্যানুয়েল ম্যানজিনি এবং আর্জেন্টাইন ক্লাব বোকা জুনিয়র্সের ক্রিস্টিয়ান পাভন।

মানজিনি হাইতির বিপক্ষে ম্যাচে দারুণ পারফর্ম করেছেন। মাঝমাঠে তিনি বেশ নির্ভরতা দেখিয়েছেন। এছাড়া আর্জেন্টিনার হয়ে হাইতি ম্যাচে শুরুর একাদশে জায়গা পাওয়া মানজিনি বিশ্ব আসরেও শুরুর একাদশে থাকার প্রত্যাশা করতে পারেন। কারণ প্রস্তুতিমূলক এই ম্যাচে আলো ছড়াতে পারেননি ডি মারিয়া এবং হিগুয়েইন।

টুইটারে হাইতি ম্যাচ নিয়ে ডি মারিয়া-হিগুয়েইন সমালোচনার শিকার হয়েছেন। অন্যদিকে মন জয় করেছেন মিডফিল্ডার মানজিনি। এমনকি ভক্তরা তো ডি মারিয়াকে বাদ দিয়ে লানজিনিকে উইঙ্গে খেলানোর মত দিয়েছেন। তবে ২৫ বছর বয়সী এই তারকা আর্জেন্টিনার সেন্ট্রাল মিডফিল্ডের সমাধান হতে পারেন। সেক্ষেত্রে মেসি একটু উপরে উঠে খেলতে পারবেন। তাতে দলের হয়ে গোল করা এবং গোল করানোর কাজটা ঠিকঠাক করতে পারবেন মেসি।

অন্যদিকে হাইতি ম্যাচে আর্জেন্টিনার হয়ে আবারো ফ্লপ হিগুয়েইন। কিন্তু ২২ বছর বয়সী তরুণ ক্রিস্টিয়ান পাভন কোচের মন জয় করেছেন। মেসির সঙ্গে পাভনের জুঁটিটা দারুণ হতে পারে বলে মনে করেও কোচ সাম্পাওলি। আর্জেন্টিনা কোচ বলেন, ‘ক্রিস্টিয়ান এমন একজন খেলোয়াড় যার মাঠে মেসির সঙ্গে যোগাযোগ করার মতো আলাদা বৈশিষ্ট্য আছে। সে সবসময় জায়গা তৈরি করে নেয়। গোলে দারুণ সহায়তা করে এবং তার ভালো গতি আছে।’

উইঙ্গ এবং স্টাইকারে দারুণ মানিয়ে খেলতে পারেন এই তারকা। আর এটা আর্জেন্টিনা দলে খেলার জন্য তার একটি বাড়তি সুযোগ হিসেবে কাজ করতে পারে। আর্জেন্টিনা কোচ হোর্হে সাম্পাওলি বলেন, ‘পাভন এবং আগুয়েরো বদলি হিসেবে নেমে ভালো খেলেছে।’ ইনজুরি থেকে সেরে ওঠা আগুয়েরো বদলি হিসেবে নেমে দারুণ এক গোল করেছেন। এছাড়া পাভন হাইতি ম্যাচে মেসিকে দিয়ে যে গোলটি করিয়েছেন তাতেই তিনি তার জাত চিনিয়েছেন।

Comments..
sidebar
আগের সংবাদ
পরের সংবাদ